বাথরুমে নিয়ে ভাড়াটিয়ার ১২ বছরের মেয়েকে ধর্ষণ করল বাড়িওয়ালা!

রাজধানীর বনানীতে ভাড়াটিয়ার শিশু কন্যাকে (১২) ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে জনি (৩৫) নামের এক বাড়ির মালিকের বিরুদ্ধে। আজ শনিবার দুপুরে ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালের ওয়ান স্টপ ক্রাইসিস সেন্টারে (ওসিসি) ভুক্তভোগীকে ভর্তি করা হয়েছে।

আরও পড়ুন: সাবেক স্ত্রীর আপত্তিকর ছবি ছড়িয়ে দিয়ে ধরা স্বামী

ঢামেক হাসপাতালের ওসিসি’র সমন্বয়ক ডা. বিলকিস বেগম বলেন, ‘শিশুটিকে আমরা সন্ধ্যায় পেয়েছি। আগামীকাল শিশুটির ফরেনসিকসহ অন্যান্য পরীক্ষা করানো হবে।

 

শিশুটির মায়ের অভিযোগ, বনানীর করাইলে টিনসেট ভাড়া বাসায় থাকেন তারা। সেখানে গত বৃহস্পতিবার দিবাগত রাত ২টার দিকে মেয়ে প্রকৃতির ডাকে সাড়া দিতে বের হয়। সেখান থেকে ঘরে ফেরার সময় বাড়ির মালিক জনি (৩৫) তাকে মুখ চেপে ধরে বাথরুমে নিয়ে ধর্ষণ করেন। এ বিষয়ে কাউকে যেন কিছু না বলে, সে বিষয়ে শিশুটিকে হুমকি দেন জনি।

আরও পড়ুন: শতাধিক ছাত্রীকে ধর্ষণ ও শ্লীলতাহানি করে ২২ বছরের ছাত্র!

মেয়েটি প্রথমে ভয়ে কিছু না বললেও পরে কান্নাকাটি করে বিষয়টি জানায়। এ ঘটনা জনির স্ত্রীকে জানানো হলেও তিনি কর্ণপাত করেননি। পরে বিষয়টি থানাকে অভিহিত করা হয় এবং আজ শনিবার দুপুরে শিশুটিকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

আরও পড়ুন: চার বছর ধরে বোনকে ধর্ষণ করল দুই ভাই

ঢামেক হাসপাতাল পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ মো. বাচ্চু মিয়া বলেন, ‘শিশুটি ধর্ষণের অভিযোগ নিয়ে ঢামেক হাসপাতালের ওসিসিতে ভর্তি রয়েছে। ’

আরও পড়ুন: গরু ধর্ষণ, সিসিটিভি ক্যামেরায় ধরা ৫৫ বছরের বৃদ্ধ,

আরও পড়ুন:  ১৫ বছর বয়সেই ধর্ষণ শুরু, ২৬-এ ৪৮

শিশুটির মা পান দোকানী, বাবা রিকশা চালক। দুই ভাই ও এক বোনের মধ্যে শিশুটি সবার বড়।

আরও পড়ুন: নিজের মেয়েকে ধর্ষণ, জেল খেটে বেরিয়ে

Leave a comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *